alo
ঢাকা, রবিবার, ফেব্রুয়ারী ৫, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ | ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

চসিকের সার্ভারে হানা দিয়ে ৫ হাজার ভুয়া জন্মনিবন্ধন, গ্রেপ্তার ৪

প্রকাশিত: ২৪ জানুয়ারী, ২০২৩, ০৭:৪৫ পিএম

চসিকের সার্ভারে হানা দিয়ে ৫ হাজার ভুয়া জন্মনিবন্ধন, গ্রেপ্তার ৪
alo

 

চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) জন্মনিবন্ধন সনদ জালিয়াতির অভিযোগে সনদ প্রস্তুতকারক চক্রের চার সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট।

সোমবার (২৩ জানুয়ারি) নগরের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) দামপাড়া পুলিশ লাইন্সের মিডিয়া সেলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়।

এ সময় তাদের কাছ থেকে সনদ জালিয়াতিতে ব্যবহৃত চারটি সিপিইউ, তিনটি মনিটর, একটি স্ক্যানারসহ প্রিন্টার ও দুটি প্রিন্টার এবং চারটি মোবাইল ফোন জব্দ করা হয়।

গ্রেপ্তার আসামিরা হলেন, মো. জহির আলম (১৬), মোস্তাকিম (২২), দেলোয়ার হোসাইন সাইমন (২৩) ও মো. আব্দুর রহমান প্রকাশ আরিফ (৩৫)।

জানা গেছে, গত ৮ জানুয়ারি ৩৮নং বন্দর ওয়ার্ড কাউন্সিলর অফিসের সার্ভারে ৪০টি, ৯ জানুয়ারি ১৩নং পাহাড়তলী ওয়ার্ড কাউন্সিলর অফিসের সার্ভারে ১০টি এবং ২১ জানুয়ারি ৪০নং পতেঙ্গা ওয়ার্ড কাউন্সিলর অফিসের সার্ভারে ৮৪ টি ভুয়া জন্ম নিবন্ধনের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হলে সিএমপির কাউন্টার টেরোরিজম বিভাগ ছায়া অনুসন্ধান শুরু করে।

এরই ধারাবাহিকতাই অনুসন্ধানে জালিয়াতি করে জন্ম নিবন্ধন তৈরি করা একাধিক চক্রের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। তাদের একটি চক্রের চার সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তার আসামিরা জানান, সারাদেশ এমন আরো অনেক চক্র আছে যারা এ জাল জালিয়াতিতে সম্পৃক্ত। প্রতিটি চক্রে ৩০ থেকে শতাধিক সদস্য রয়েছে। ৫০০ থেকে ৮০০ টাকার বিনিময়ে তারা ভুয়া জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরী করে দেন। গ্রেপ্তার চক্রটি এ পর্যন্ত আনুমানিক ৫ হাজারেরও অধিক ভুয়া জন্ম নিবন্ধন সনদ তৈরি ও বিতরণ করেছেন।

মূলত সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যক্তিদের কাছ থেকে তথ্য নিয়ে সরকার নির্ধারিত ওয়েব সাইটে ওই ব্যক্তির ভুয়া ঠিকানা ব্যবহার করে প্রাথমিক নিবন্ধন করে। পরবর্তীতে এসব তথ্য একজন তথাকথিত হ্যাকারের মাধ্যমে অবৈধভাবে জন্মনিবন্ধন সার্ভার এ প্রবেশ করে একটি জাল জন্ম সনদ প্রস্তুত করে। কথিত হ্যাকার তৈরি করা জন্ম নিবন্ধন সনদ পুনরায় চক্রের সদস্যদের পাঠিয়ে দেন।

 

 

এ প্রসঙ্গে সিএমপি কমিশনার কৃষ্ণপদ রায় নিউজনাউকে বলেন, সার্ভার হ্যাক হয়েছিল নাকি অন্য কেউ তাদেরকে পাসওয়ার্ড দিয়েছিল তা আমরা এখনো নিরূপণ করতে পারিনি। বিষয়টি তদন্তাধীন। বিষয়টি বাইরে থেকে করছিল। এ বিষয়ের ভেতর থেকে কেউ সহায়তা করেছে কিনা তা আমরা ক্ষতি দেখছি।

তিনি আরও বলেন, নগরের খুলশী থানায় ১৩নং পাহাড়তলী ওয়ার্ড এর জন্ম নিবন্ধন সহকারী মো. আনোয়ার হোসেন বাদি হয়ে একটি নিয়মিত মামলা দায়ের করেছেন। চক্রের অন্য সদস্যদের গ্রেপ্তারে অভিযান ও আইনি কার্যক্রম চলমান আছে।

নিউজনাউ/পিপিএন/২০২৩

X