alo
ঢাকা, রবিবার, ফেব্রুয়ারী ৫, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ | ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নতুন বছরেও ঝড়ের ইঙ্গিত দক্ষিণী সিনেমা ইন্ড্রাস্ট্রিতে

প্রকাশিত: ১৯ জানুয়ারী, ২০২৩, ০৬:১৬ পিএম

নতুন বছরেও ঝড়ের ইঙ্গিত দক্ষিণী সিনেমা ইন্ড্রাস্ট্রিতে
alo

নিউজনাউ ডেস্ক: ২০২২ ছিলো দক্ষিণী সিনেমা ইন্ড্রাস্ট্রির স্বপ্নের বছর। দক্ষিণ ভারতের সিনেমার তান্ডবে বাজার হারিয়েছে হিন্দি সিনেমা। যদি দক্ষিণী সিনেমা আর বলিউড সিনেমার ব্যবসাটা পরিলক্ষিত করা যায়, তাহলে দেখা যায় হিন্দি সিনেমার বলয়ে যে ব্যবসা হয়েছে, তার ৩৫ শতাংশই করেছে দক্ষিণি সিনেমা; যা কোভিডের আগে ছিল ১০ থেকে ১৫ শতাংশ।  অনেক বলিউড প্রযোজকরা আশা করছে , ২০২৩ সাল হতে পারে বলিউডের স্বর্গরাজ্য। চলতি বছর এখনো বড় হিন্দি সিনেমা সেভাবে মুক্তি পায়নি। যদিও ইতিমধ্যেই পাঠান সিনেমার মুক্তির তারিখ ঘনিয়ে এসেছে। কিন্তু গতবছরের ন্যায় এই বছরের শুরুতে দক্ষিণি ঝড়শুরু হয়ে গেছে। গত সপ্তাহে মুক্তি পাওয়া চারটি দক্ষিণি সিনেমা এর মধ্যেই ১০০ কোটি রুপির বেশি আয় করেছে। যা একপ্রকার বলিউডের জন্য হুঁশিয়ারি বলা যায়।

অজিত কুমার ও বিজয়দুজনই তামিল সিনেমার বড় তারকা। বর্তমানে দুজনই দারুণ ফর্মে আছেন বলা যায়। গত বছর অজিতের সিনেমা ভালিমানিও বিজয়ের বিস্টবক্স অফিসে ঝড় তুলেছিল। তাদের নতুন সিনেমা নিয়ে তাই ভক্তদের প্রত্যাশা আরও বেড়ে যায়। কিন্তু অজিত ও বিজয়ের নতুন সিনেমা থিনিবুবারিসুএকই দিন মুক্তি পাওয়ায় তৈরি হয় সংশয়বড় বাজেটের সিনেমা দুটি ব্যবসা করতে পারবে তো! তবে সব শঙ্কা উড়িয়ে দুই সিনেমাই ভালো ব্যবসা করছে।

বিজয়ের নতুন সিনেমায় মানেই যে রীতিমতো ঝড় তুলবে তা মুক্তির আগে থেকেই ভক্তদের প্রত্যাশার অবস্থা দেখে বুঝায় যাচ্ছিলো। এই সিনেমায় বিজয়ের সাথে প্রথমবারের মতো দেখা যায় রাশমিকা মন্দানাকে, যা ভক্তদের প্রত্যাশা আরো চরম গুণে বাড়িয়ে তোলে। ছবিটির বাজেট ২৮০ কোটি রুপি। কিন্তু তাঁদের হতাশ করে ছবিটির ট্রেলার। বামসি পইডিপালি পরিচালিত অ্যাকশন ড্রামা ঘরানার সিনেমাটির ট্রেলার খুবই গড়পড়তামানের বলে রায় দেন সমালোচকেরা।

অন্যদিকে অজিত কুমারের সিনেমা মানে গড়পড়তা অ্যাকশন থেকে বের হয়ে ভিন্ন ধারার অ্যাকশন সিনেমা উপহার দিতে ওস্তাদ। এইবার ও ব্যাতিক্রম হয়নি। সিনেমা থিনিবুঅ্যাকশন হেইস্ট ঘরানার সিনেমা। এইচ বিনোথ পরিচালিত সিনেমায় অজিত ছাড়া আছেন মানজু ওরিয়রও। প্রায় ২০০ কোটি রুপি বাজেটের সিনেমাটি ভারতের পাশাপাশি থাইল্যান্ডেও শুটিং হয়েছে। 

১১ জানুয়ারি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে সিনেমা দুটি। প্রথম দিন থেকেই ভালো ফল করছে বারিসুথিনিবু। এর মধ্যে বাজিমাত করেছে বিজয়ের সিনেমা। এর মধ্যেই বিশ্বব্যাপী বক্স অফিস থেকে ২১৩ কোটি রুপি আয় করেছে। পিছিয়ে নেই অজিতের সিনেমাও। থিনিবুর আয় এ পর্যন্ত দেড় শ কোটি ছাড়িয়েছে।

শুধু বারিসুথিনিবুনয় , পাশাপাশি আরো দুইটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে হলে। যা বছরের শুরুতেই বক্স অফিস থেকে ১০০ কোটি রুপির বেশি আয় করেছে ।দুটিই ছিল তেলেগু সিনেমা। ওলটার বেরিয়াবীরা সিমা রেড্ডি

প্রথমটিতে অভিনয় করেছেন চিরঞ্জীবী ও শ্রুতি হাসান। ৬৭ বছর বয়সী চিরঞ্জীবীকে ৩৬ বছর বয়সী শ্রুতি হাসানের সঙ্গে রোমান্স করতে দেখে সামাজিক যোগাযোগমধ্যমে সমালোচনার ঝড় উঠেছিল। কিন্তু এতো সব কিছুকে ছাড়িয়ে ঠিকই বক্স অফিসে  বাজিমাত করেছে সিনেমাটি।  ১৩ জানুয়ারি মুক্তির পর মাত্র চার দিনেই ১৪৪ কোটি রুপি আয় করেছেন সিনেমাটি।

বীরা সীমা রেড্ডিও ১০৯ কোটি রুপি আয় করে হিটের তকমা পেয়েছে। গোপিচাঁদ মলিনেনি পরিচালিত সিনেমাটিতে অভিনয় করেছেন নন্দমুরি বালাকৃষ্ণ ও শ্রুতি হাসান। ছবিটিতে নন্দমুরিকে দ্বৈত চরিত্রে দেখা গেছে। অন্যদিকে শ্রুতি হাসানের অনেকদিন পর সিনেমায় ফিরে আসাটা একপ্রকার স্বার্থক বলা যায়।চলতি বছরটা তাঁর শুরু হলো জোড়া হিট দিয়ে। মাঝখানে অনেক দিন ধরেই অভিনয়ের অনিয়মিত ছিলেন শ্রুতি।

নিউজনাউ/এসবি/২০২৩

 

X