alo
ঢাকা, সোমবার, অক্টোবর ৩, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আফগানিস্তানের ধ্বংসাত্মক জয়, পাত্তাই পেলো না শ্রীলঙ্কা

প্রকাশিত: ২৮ আগস্ট, ২০২২, ১০:২৮ এএম

আফগানিস্তানের ধ্বংসাত্মক জয়, পাত্তাই পেলো না শ্রীলঙ্কা
alo

 

নিউজনাউ ডেস্ক: এশিয়া কাপে গত রাতে মুখোমুখি হয়েছিলো শ্রীলঙ্কা এবং আফগানিস্তান। আর এই ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে কাগুজে সিংহের মতো একদম দুমড়ে মুচড়ে দিয়ে ধ্বংসাত্মক এক জয় তুলে নিয়ে আফগানিস্তান। 

শ্রীলঙ্কাকে ৮ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারালো মোহাম্মদ নবী-রশিদ খানরা। শ্রীলঙ্কার দেওয়া ১০৬ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে রহমানুল্লাহ গুরবাজ ও হযরতুল্লাহ জাজাইয়ের দারুণ ব্যাটিংয়ে ৫৯ বল আগেই ৮ উইকেটে জয় নিশ্চিত করে আফগানিস্তান।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে শ্রীলঙ্কাকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান আফগান অধিনায়ক মোহাম্মদ নবী। সিদ্ধান্ত কতটা যৌক্তিক, সেটি বোঝাতে খুব বেশি অপেক্ষা করতে হয়নি নবীকে। আফগান বোলারদের তোপের মুখে মাত্র ১০৫ রান করতে পারে লঙ্কানরা। সেই রান আবার রহমানুল্লাহ গুরবাজ ও হযরতুল্লাহ জাজাইয়ের আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়েই অনায়াসেই টপকে যায় আফগানিস্তান। সবমিলিয়ে ব্যাটিং-বোলিং-ফিল্ডিংয়ের দুর্দান্ত এক প্রদর্শন হলো দুবাই স্টেডিয়ামে।

১০৬ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করতে থাকেন আফগান দুই ওপেনার। রহমানুল্লাহ গুরবাজ ও হযরতুল্লাহ জাজাইয়ের দারুণ ব্যাটিংয়ে মাত্র ৬ ওভারেই ৮৩ রান তুলে ফেলে আফগানরা। সপ্তম ওভারের প্রথম বলে হাসারাঙ্গা ডি সিলভার ঘূর্ণিতে গুরবাজ সাজঘরের পথ দেখেন। আউট হওয়ার আগে ১৮ বলে ৩ চার ও ৪ ছক্কায় ৩৮ রানের ইনিংস খেলেন বিস্ফোরক এই ব্যাটার। এরপর তিন নম্বরে নামা ইব্রাহিম জাদরান ১৩ বলে ১৫ রান করে রান আউটের শিকার হন। বাকি পথটুকু হযরতুল্লাহ জাজাই এবং নাজিবুল্লাহ জাদরান মিলে অনায়াসেই পাড়ি দেন। জাজাই ২৮ বলে ৫ চার ও ১ ছক্কায় ৩৭ রানের অপরাজিত থাকেন। জাদরান ২ বলে ২ রানে অপরাজিত থাকেন।


এর আগে আফগানিস্তানের বোলারদের তোপের মুখে পড়ে ১৯.৪ ওভারে ১০৫ রানে অল-আউট হয় শ্রীলঙ্কা। লঙ্কান ব্যাটার ভানুকা রাজাপাকসে ও চামিকা করুণারত্নে ছাড়া কেউই সুবিধা করতে পারেনি। শুরু থেকেই আফগান বোলাররা লঙ্কান টপ অর্ডারকে চেপে ধরেন। প্রথম ওভারেই ফজল হক ফারুকির বোলিংয়ে কুশাল মেন্ডিস (২) ও চারিথ আসালঙ্কা (০) সাজঘরে ফেরেন। দ্বিতীয় ওভারের শেষ বলে পাথুম নিশানকাকে (৩) ফেরান নাভিন-উল-হক।

৫ রানেই ৩ উইকেট হারানো লঙ্কানরা আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি। যদিও দানুশকা গুনাথিলাকা ও ভানুকা রাজাপাকসে মিলে চতুর্থ উইকেটে ৪৪ রান তোলেন। দলীয় ৪৯ রানের মাথায় গুনাথিলাকাকে (১৭) ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন মুজিব উর রহমান।  দলীয় ৬৯ রানে ভানুকা রাজাপাকসে (৩৮) ও মাহিশ থিকসানা (০) রান আউট হলে অল-আউট হওয়ার শঙ্কায় পড়ে যায় লঙ্কানরা।


মূলত চামিকা করুণারত্নের ৩১ রানের ইনিংসের উপর ভর করে লঙ্কানরা কোনরকমে ১০৫ রান সংগ্রহ করে।  ৩৮ বল খেলে ৩ চার ও ১ ছক্কায় ৩১ রানের ইনিংস খেলেন চামিকা।

আফগান বোলারদের মধ্যে ফজল হক ফারুকি ১১ রান খরচায় নেন ৩টি উইকেট। মুজিব উর রহমান ও মোহাম্মদ নবী ২টি করে উইকেট নেন।

নিউজনাউ/এবি/২০২২
 

X